শিরোনাম :
সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। # সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের সঙ্গেই থাকুন। -ধন্যবাদ।
শিরোনাম :
প্রেসক্লাব লালমনিরহাটের নতুন সদস্য ২০জনের চুড়ান্ত অনুমোদন শব্দহীন কবিতার অবয়ব ভাটিবাড়ী লোকনাট্য দলের আহবায়ক কমিটি গঠন অনুষ্ঠিত মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত পাটগ্রাম তাহেরা বিদ্যাপীঠে বার্ষিক ক্রীড়া, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত লালমনিরহাট কেন্দ্রীয় শহিদ মিনার মাতৃভাষা দিবসের শ্রদ্ধা জানাতে প্রস্তুত সুলতানুল আউলিয়া, ইনসানে অলীয়ে কামেল হযরত শাহ্ নওগজি (রহঃ) এর বাৎসরিক মহা পবিত্র ওরছ মোবারক লালমনিরহাটে নবনির্বাচিত জাতীয় সংসদ সদস্য অ্যাড. মোঃ মতিয়ার রহমান এর সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত লালমনিরহাট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির পরিচালক পদের ২১টি মনোনয়নপত্র জমা ভাটিবাড়ী আদর্শ ইজিবাইক মালিক কল্যাণ সমিতির নব নির্বাচিত সভাপতি/ সম্পাদকসহ কার্যকরী পরিষদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত
ইটভাটার গ্যাসে পুড়লো কৃষকের স্বপ্ন; ক্ষতি পূরণের দাবি

ইটভাটার গ্যাসে পুড়লো কৃষকের স্বপ্ন; ক্ষতি পূরণের দাবি

আলোর মনি রিপোর্ট: লালমনিরহাট সদর উপজেলার মোগলহাট ইউনিয়নের কর্ণপুরের ইটভাটার গ্যাসে কৃষকদের আবাদি জমির ফসল ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। এ ঘটনায় ২শতাধিক স্থানীয় ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকরা ২ঘন্টাব্যাপী সড়ক অবরোধ করেছে।

 

রোববার (১৭ এপ্রিল) সকালে কৃষকরা তাদের ফসলের ক্ষতি পূরণের দাবিতে মোগলহাট-লালমনিরহাট মহাসড়ক অবরোধ করে।

 

এর আগে শনিবার রাতে লালমনিরহাট সদর উপজেলার মোগলহাট ইউনিয়নের জিরামপুর গ্রামের টুস্টার ইটভাটায় গ্যাস দিয়ে ইট পড়ানোর সময় উক্ত গ্যাস বাতাসের কারণে উত্তর দিকে প্রবাহিত হওয়ায় কৃষকের অনেক আবাদি জমির ধান ও ভুট্টার ব্যাপক ক্ষতি হয়। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী কৃষক ও তাদের পরিবারের সদস্যরা রবিবার সকালে উক্ত আবাদি জমির ফসলের ক্ষতিপূরণের দাবিতে লালমনিরহাট-মোগলহাট সড়কের জিরামপুর এলাকায় ব্যারিকেড দেয় এসময় প্রায় ২শতাধিক কৃষক ও তাদের পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

 

স্থানীয় কৃষক মাহমুদুল জানান, আমাদের পাশাপাশি দুইটি ভাটার কারণে বরাবরই আমারা ক্ষতিগ্রস্থ হই। এবারে আমি প্রায় তিন বিঘা জমিতে ধান চাষ করেছি। ঐ জমির ফসল দিয়েই আমার সারাবছর খাবার যোগান হয়। কিন্তু ভাটার গ্যাসের কারণে আমার সব ফসল জমিতেই পুড়ে গেলো। ধান ছাড়াও আমাদের এলাকার ভুট্টা, গাছ, বাঁশসহ সকল ফসলের ক্ষতি হয়েছে। আমরা এ বিষয়ে অভিযোগ দিবো প্রস্তুতি চলছে।

 

কৃষক মেহের আলী বলেন, আমার ৫সদস্যের পরিবার। আমি এক একর জমির ধান দিয়ে সারাবছর খাবার যোগাই।এটাই আমার একমাত্র আয়ের জায়গা। এখন আমি কি করবো আমার স্বপ্ন ক্ষেতেই পুড়ে গেলো। শুধু আমি নই এই এলাকার শতাধিক কৃষকের স্বপ্নের ফসল এই ভাটার গ্যাসে নষ্ট হয়ে গেছে।

 

এছাড়া কৃষক মিরাজ, কৃষক আবু বক্কর সিদ্দিক, কৃষক ফজলু, কৃষক ফজলার রহমানসহ শতাধিক কৃষকদের ফসলের ক্ষতি হয়েছে। তাদের দাবি দ্রুত পুড়ে যাওয়া ফসলের ক্ষতিপূরণ ও পরবর্তীতে এমনটা যেন আর ঘটে তার স্থায়ী সমাধান কার হোক।

 

পরে লালমনিরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও মোগলহাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে ইটভাটার বর্তমান কার্যক্রম বন্ধ এবং কৃষকের আবাদি জমির ক্ষয়ক্ষতির ক্ষতিপূরণের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে কৃষকরা অবরোধ প্রত্যাহার করেন। বর্তমান রাস্তায় যান চলাচল স্বাভাবিক।

 

এ বিষয়ে লালমনিরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মাহমুদা মাসুম বলেন, ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের ক্ষতি পূরণের ব্যবস্থা করা হবে। ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম। ঐ ইটভাটার কাউকে খুজে পাই নি।তবে একজন কর্মচারী ছিলো আমরা দ্রুত ভাটার সকল কাগজপত্র নিয়ে ডেকেছি।ভাটাটি অবৈধ হলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design & Developed by Freelancer Zone