শিরোনাম :
সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। # সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের সঙ্গেই থাকুন। -ধন্যবাদ।
লালমনিরহাটে ঝুঁকিপূর্ণ সাঁকোতেই পারাপার পৌরসভাবাসীর

লালমনিরহাটে ঝুঁকিপূর্ণ সাঁকোতেই পারাপার পৌরসভাবাসীর

আলোর মনি ডটকম ডেস্ক রিপোর্ট: লালমনিরহাট পৌরসভার উত্তর সাপটানা হালাবটের তল সংলগ্ন খালে নির্মিত বাঁশের সাঁকোর উপর দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছেন কয়েকটি গ্রামের কয়েক হাজার মানুষ। এসব গ্রামের কোমলমতি শিশুসহ কয়েকজন মোটর সাইকেল আরোহী সাঁকো থেকে পড়ে গুরুত্বর আহত হওয়ার ঘটনাও ঘটেছে। তাই লালমনিরহাট পৌরসভাবাসীর দাবি এখানে দ্রুত একটি সেতু নির্মাণ করা হোক।

২০১৭ সালের ভয়াবহ বন্যায় কালভার্টটি ধরলা-রত্নাই নদীর প্রবল পানির তোড়ে ভেঙে যায়। ফলে পানি প্রবেশ করে ভয়াবহ বন্যার সৃষ্টি হয়। পানি নেমে গেলে লালমনিরহাট পৌরসভাবাসী অর্থ ও বাঁশ সংগ্রহ করে স্বেচ্ছাশ্রমের ভিত্তিতে একটি বাঁশের সাঁকো নির্মাণ করে। এই সাঁকো দিয়ে প্রতিদিন নারী, পুরুষ, শিশুসহ হাজারও মানুষ জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করে আসছে।

 

সেতু না থাকায় এখানকার কয়েকটি গ্রামের হাজারও কৃষক পরিবার তাদের উৎপাদিত কৃষি পণ্য পার্শ্ববর্তী ভাটিবাড়ি, নয়ারহাট, কুলাঘাট ও বড়বাড়ি, লালমনিরহাটে নিয়ে বিক্রি করতে পারছেনা। তাদেরকে অনেক দূর ঘুরে কৃষি পণ্য পরিবহন করে হাট-বাজারে নিতে হচ্ছে। এতে খরচ বেড়ে কৃষি পণ্যের সঠিক মূল্য পেলেও লাভের মুখ দেখছেন না।

 

সেতুটি ভাঙার পর যারা দূর-দূরান্ত থেকে মোটর সাইকেল চালিয়ে আসতে গিয়ে বাঁশের সাঁকোর উপর উঠায় নড়বরে বাঁশের সাকোটিতে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পড়ে যায়। নারী, পুরুষ, শিশুসহ মোটর সাইকেল আরোহী এই বাঁশের সাঁকো থেকে পড়ে গুরুত্বর আহত হয়েছে। বর্তমানে সাঁকোটি মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে।

 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ব্যক্তি জানান, লালমনিরহাট পৌরসভার কয়েকটি গ্রামের হাজারও মানুষের যাতায়াতের একমাত্র রাস্তার এই ছোট একটি সেতু নির্মাণ করছেন না। পৌরসভাবাসী এখানে একটি সেতু নির্মাণের জন্য নানা জায়গায় আবেদন করেও ৪বছরেও এই সেতুটি নির্মাণ হয়নি।

সংবাদটি শেয়ার করুন




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design & Developed by Freelancer Zone