শিরোনাম :
সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। # সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের সঙ্গেই থাকুন। -ধন্যবাদ।
শিরোনাম :
দেশবাসীকে সাপ্তাহিক আলোর মনি’র ঈদ-উল-আযহার শুভেচ্ছা লালমনিরহাটে কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা-২০২৪ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটে জাতীয় মহাসড়কের ডিভাইডারে ঝুঁকিপূর্ণ বিলবোর্ড স্থাপন! লালমনিরহাটের সাংবাদিক মোঃ মিজানুর রহমান-এঁর শুভ জন্মদিন পালিত লালমনিরহাটের হযরত শাহ্ কবির (রহঃ) বড়দরগাহ মাজার শরীফ লালমনিরহাটে ছাত্রলীগের সভাপতি ও তার সহযোগীদের গ্রেফতারের দাবীতে- মানববন্ধন অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটের প্রবেশদ্বার মিশন মোড় গোলচত্ত্বরের ফোয়ারার স্থলে এখন ঘাস লাগানো হয়েছে তোমরা ভবিষ্যৎ জাতি গঠনের কারিগর : সংবর্ধনায় অধ্যক্ষ আসাদুল হাবিব দুলু লালমনিরহাটে ক্ষতিকারক ইউক্যালিপটাস গাছ ব্যাপক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে লালমনিরহাটের বটতলার সড়কবাতি জ্বলে না!
দুই পথচারির কারণে প্রাণে বেঁচে গেলো, খেলনা পিস্তল আর দেশীয় অস্ত্রের মুখে থাকা অটোরিক্সা আর চালক

দুই পথচারির কারণে প্রাণে বেঁচে গেলো, খেলনা পিস্তল আর দেশীয় অস্ত্রের মুখে থাকা অটোরিক্সা আর চালক

আলোর মনি ডটকম ডেস্ক রিপোর্ট: লালমনিরহাটের অাদিতমারী উপজেলার কমলাবাড়ী ইউনিয়নে খেলনা পিস্তল অার দেশীয় অস্ত্র দিয়ে অটোরিক্সা ছিনতাইয়ের চেষ্টা করেছে দুর্বৃত্তরা।

 

উপজেলার নামুড়ী মদনপুর গ্রামের অাবু তালেবের অটোরিক্সা রাত ৯টা ১৫মিনিটের দিকে ৩জন বিয়ে বাড়ির কথা বলে ভারা করে। সেখান থেকে মহিষখোচা গিয়ে বিয়ে চলে গেছে, এমন কথা বলে কনের বাড়ি কমলাবাড়ী যাওয়ার কথা বলে কমলাবাড়ীতে নিয়ে অাসে। পথিমধ্যে অাদিতমারী হাসপাতালের সামনে উঠে। তারপর কমলাবাড়ী চলে অাসে।

মঙ্গলবার (৩ নভেম্বর) দিবাগত রাতে কমলাবাড়ীর কুমড়ীরহাট বাজার অার হাজীগঞ্জের মাঝ পথে, বারোপঁসার দোলার নির্জন এলাকায় রাত ১টা ২০মিনিটের দিকে অটোরিক্সা থামায়।তারপর খেলনা পিস্তল অার দেশীয় অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে দড়ি দিয়ে বেঁধে ফেলে।

এমন সময় উল্টো পথ থেকে অাসা মোটর সাইকেল চালক মিলন রায় এবং অাব্দুল লতিফ কাছাকাছি চলে অাসলে অটোরিক্সা চালক তালেব চিৎকার করে বাঁচাতে বলে। ওই দুর্বৃত্ত চারজন ধান ক্ষেতের মাঝ দিয়ে পালিয়ে যায়। এ সময় তারা তালেবের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন ০১৭২৭৮৫৫৫৬৯ নিয়ে পালিয়ে যায়।

 

মিলন রায় এবং আব্দু্ল লতিফ জানান, তারা অটোরিক্সাটির কাছাকাছি চলে অাসার পরে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। এ সময় অামরা তাদের তাড়া করেও ধরতে পারিনি।অটোচালককে অামরা হাতপা বাধা অবস্থায় উদ্ধার করি। অামরা কয়েকবার পুলিশকে ফোন করেছি। পুলিশ অাসছে।

 

অাদিতমারী থানার ডিউটি অফিসার ফয়জুর রহমান অভিযোগ পাওয়ার কথা নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, কিছুক্ষণের মধ্যে অামাদের মোবাইলটিম ঘটনাস্থলে পৌঁছাবে।

 

পরে রাত ৩টা ৩০মিনিটে আদিতমারী থানা পুলিশের মোবাইল টিম অটোরিক্সা এবং অটোচালককে উদ্ধার করে এসআই স্যামল।

সংবাদটি শেয়ার করুন




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design & Developed by Freelancer Zone