শিরোনাম :
সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। # সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের সঙ্গেই থাকুন। -ধন্যবাদ।
শিরোনাম :
দেশবাসীকে সাপ্তাহিক আলোর মনি’র ঈদ-উল-আযহার শুভেচ্ছা লালমনিরহাটে কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা-২০২৪ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটে জাতীয় মহাসড়কের ডিভাইডারে ঝুঁকিপূর্ণ বিলবোর্ড স্থাপন! লালমনিরহাটের সাংবাদিক মোঃ মিজানুর রহমান-এঁর শুভ জন্মদিন পালিত লালমনিরহাটের হযরত শাহ্ কবির (রহঃ) বড়দরগাহ মাজার শরীফ লালমনিরহাটে ছাত্রলীগের সভাপতি ও তার সহযোগীদের গ্রেফতারের দাবীতে- মানববন্ধন অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটের প্রবেশদ্বার মিশন মোড় গোলচত্ত্বরের ফোয়ারার স্থলে এখন ঘাস লাগানো হয়েছে তোমরা ভবিষ্যৎ জাতি গঠনের কারিগর : সংবর্ধনায় অধ্যক্ষ আসাদুল হাবিব দুলু লালমনিরহাটে ক্ষতিকারক ইউক্যালিপটাস গাছ ব্যাপক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে লালমনিরহাটের বটতলার সড়কবাতি জ্বলে না!
সেই আলোচিত মামলার অভিযোগপত্র এখন আদালতে

সেই আলোচিত মামলার অভিযোগপত্র এখন আদালতে

আলোর মনি ডটকম ডেস্ক রিপোর্ট: সাংবাদিক হেলাল হোসেন কবিরের উপর হামলা এবং জোর পূর্বক ফাঁকা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেয়া সেই ৫মাদক ব্যবসায়ীদের নামে অভিযোগপত্র আদালতে দাখিল করেছেন মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা।

 

অভিযোগপত্রে যাদের নাম রয়েছে তারা হলেন- লালমনিরহাট পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের তিনদীঘি এলাকার মৃত্য আকবর আলীর ছেলে রফিকুল ইসলাম (৪৮), নিউ কলোনী এলাকার মৃত্য খালেক মৃধা ছেলে হানিফ মৃধা (৫০), আবু সাঈদের ছেলে ফরহাদ (২৭), মুসা (২৫) ও আওলাদ হোসেনের ছেলে রেজাউল করিম রিংকু (২৫)।

 

জানা যায়, করোনা কালে লালমনিরহাট সদর উপজেলার মহেন্দ্রনগর ইউনিয়নের ঠাকুরের মাল্লি এলাকায় জমজমাট মাদক বিক্রি করার সময়  ও মাদক খেয়ে মাতাল হয়ে চিল্লাচিল্লির শব্দ শুনে চলতি বছরের ৩ এপ্রিল এলাকাবাসীসহ সাংবাদিক হেলাল হোসেন কবির মাদক ব্যবসার প্রতিবাদ করে। উক্ত শত্রুতার জের ধরে ১১ এপ্রিল জেলা শহরের গোশালা বাজারে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য ক্রয় করার সময় সাংবাদিক হেলাল হোসেন কবিরের উপর হামলা এবং জোর পূর্বক ফাঁকা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেয় উক্ত মাদক ব্যবসায়ীরা। হেলাল হোসেন কবির সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক ও বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথে জড়িত আছেন। হেলাল হোসেন কবির বাদি হয়ে গত ১৯ এপ্রিল রাতে লালমনিরহাট সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। এদিকে আসামীরা গত ১৯ জুলাই আদালতে স্বেচ্ছায় আত্মসর্মপন পূর্বক জামিনে মুক্তি গ্রহণ করে।

 

লালমনিরহাট সদর থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা মোঃ শাহিনুর ইসলাম বলেন,  প্রকাশে ও গোপনে অনেক তদন্ত করে অভিযোগপত্র তৈরি করা হয়েছে। মামলার উপর ভিত্তি করে বিভিন্ন ধারার অপরাধ প্রাথমিক ভাবে সত্য প্রমাণ পাওয়া গেছে। মামলার এক নম্বর আসামীর বিরুদ্ধে আরও দুটি মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলার প্রমাণ মিলেছে। গত ২৩ জুলাই আদালতে ৫জনের নামে একটি অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design & Developed by Freelancer Zone