শিরোনাম :
সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। # সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের সঙ্গেই থাকুন। -ধন্যবাদ।
শিরোনাম :
লালমনিরহাটে ক্ষতিকারক ইউক্যালিপটাস গাছ ব্যাপক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে লালমনিরহাটের বটতলার সড়কবাতি জ্বলে না! লালমনিরহাটের প্রাচীন বটগাছটি হেলে যাচ্ছে! লালমনিরহাটে ব্যবসায়ীর টাকা ছিনতাই চেষ্টা; ২ পুলিশ সদস্য প্রত্যাহার! লালমনিরহাট জেলা ছাত্রলীগের সভাপতিকে অব্যাহতি লালমনিরহাট জেলা ছাত্রলীগের সভাপতির বিরুদ্ধে গরু ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে ২লাখ ৪০হাজর টাকা চাঁদাবাজির অভিযোগ! উপকারভোগীর কাছ থেকে মাইক্রোফোন কেড়ে নেওয়ায় ক্ষেপে গেলেন প্রধানমন্ত্রী! লালমনিরহাটে সিজেজি সদস্যদের সাথে নেটওয়ার্কিং মিটিং অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটে ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটের ঐতিহ্যবাহী মোগলহাট জিরো পয়েন্ট এখন শুধুই স্মৃতি : দর্শনার্থীদের ভিড়
লালমনিরহাটে বর্ষার পানিতে মেতেছে দুরন্তপনা শিশু-কিশোরেরা!

লালমনিরহাটে বর্ষার পানিতে মেতেছে দুরন্তপনা শিশু-কিশোরেরা!

বর্ষার পানিতে পূর্ণ হয়ে গেছে লালমনিরহাটের খাল-বিল, নদী-নালাগুলো। লালমনিরহাটের শিশু কিশোরেরা আনন্দে মেতে ওঠে বর্ষার নতুন পানিতে। বেলা হলেই এসব জলাধারের স্বচ্ছ পানিতে ঝাঁপিয়ে পড়ে গ্রামের দুরন্ত শিশু-কিশোরেরা। বড়রাও যেন ফিরে যেতে চান সেই ফেলে আসা শৈশবের দুরন্তপনায়। উঁচু স্থান থেকে শিশুদের মতো লাফঝাঁপে কিছুক্ষণের জন্য তাঁরাও ফিরে গিয়েছিলেন মধুর শৈশবে। একটু প্রশান্তির জন্য সাওরিখানা খালের স্বচ্ছ পানিতে দলবেঁধে গোসল করতে নেমেছে শিশু-কিশোররা।

সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, লালমিরহাট জেলার প্রতিটি উপজেলায় বিভিন্ন নদী-নালার উঁচু ব্রিজ থেকে ঝাঁপ দিয়ে পানিতে পড়ার অপরূপ দৃশ্য। তেমনই লালমনিরহাট সদর উপজেলার সাওরীখানা ব্রিজ থেকে ১০-১২ বছর বসয়ী এক ঝাঁক কিশোর মনের সুখে নদীর পানিতে ঝাঁপ দিচ্ছে। তারা যেন নদীর বুকে নিজেদের হারিয়ে ফেলেছে।

একই রকমের দৃশ্য দেখা গেলো, লালমনিরহাট সদর উপজেলার মোগলহাট ইউনিয়নের রত্নাই ব্রিজ এলাকায় এক ঝাঁক কিশোর মনের আনন্দে ব্রিজে উঠছে নদীর পানিতে ঝাঁপ দিতে। তাদের মাঝে বিরাজ করছে কি যেন এক অনুভূতি। নদীর পানিতে থাকা সকল প্রাণীর সাথে যেন তাদের একটা স্বক্ষতা গড়ে উঠেছে। ভয় আর ভীতির কোন বালাই নেই তাদের কাছে। দীর্ঘ সময় ধরে পানিতে তাদের ঝাঁপাঝাঁপিতে শরীর ফ্যাকশা হয়ে গেছে, দু‘চোখ লাল হয়ে উঠেছে। তবুও তাদের কোনো ক্লান্তি নেই। মনের সুখে ব্রিজ থেকে ঝাঁপ দিচ্ছে আর নদীতে গা ভাসিয়ে সাঁতার কাটছে।

কথা হয় লালমনিরহাট সদর উপজেলার কোদালখাতা এলাকার আলমের সাথে সে বলেন, প্রতিদিন দুপুর ১২টা বাজলে আমরা গ্রামের সব বন্ধুরা এই ব্রিজে আসি। আর মনের সুখে গোসল করি। ব্রিজ থেকে লাফ দিয়ে নদীতে গোসল করতে খুব ভাল লাগে।

সংবাদটি শেয়ার করুন




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design & Developed by Freelancer Zone