শিরোনাম :
সাপ্তাহিক আলোর মনি পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। # সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের সঙ্গেই থাকুন। -ধন্যবাদ।
শিরোনাম :
লালমনিরহাটে হাতী-ঘোড়া সাজিয়ে ওয়ালটনের বর্ণাঢ্য র‌্যালি লালমনিরহাটে ১৫ মিটার দৈর্ঘ্যের ৩টি গার্ডার ব্রীজ নির্মাণ শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটে সর্বজনীন পেনশন মেলা ২০২৪ উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত লালমনিরহাটের নিরীহ স্যানেটারী মিস্ত্রী মোঃ জিয়াউর রহমানকে মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ! অভ্যন্তরীণ বোরো ধান ও চাল সংগ্রহ ২০২৪ শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠিত গ্রামীণ অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ টিআর প্রকল্পের নগদ টাকা বিতরণ অনুষ্ঠিত লালমনিরহাট রেলওয়ে বিভাগে দেশের প্রথম ইঞ্জিন ও কোচ ঘুরানো টার্ন টেবিল নির্মাণ লালমনিরহাটের ঐতিহ্যবাহী সুকান দীঘিতে পদ্মফুল ফুটেছে লালমনিরহাটের ৩টি উপজেলায় স্বতন্ত্র পদপ্রার্থীদের লড়াই! লালমনিরহাটে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে পুতি রাণীর মৃত্যু
বিদ্যালয়ের ভবন নির্মাণের কাজে ঠিকাদারের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

বিদ্যালয়ের ভবন নির্মাণের কাজে ঠিকাদারের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

ইস্টিমেট অনুযায়ী সঠিকভাবে লেপিং, নির্দিষ্ট জায়গায় লোহার রিং স্থাপন না করাসহ বেশ কয়েকটি ত্রুটি পাওয়া যায় লালমনিরহাট জেলার পাটগ্রাম উপজেলার জোংড়া আফতাবনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বরাদ্দকৃত তিনতলা বিশিষ্ট ভবন নির্মাণের কাজে।

 

প্রতিষ্ঠানটির চলমান কাজে লোহার সঠিক ব্যবহার না করার বিষয়টি ঠিকাদার এনামুল হক, পাটগ্রাম উপজেলার এসও মানিকসহ অন্যান্যদের উপস্থিতিতে ধরা পড়ে।

 

জানা যায়, প্রায় ১কোটি ২২লক্ষ টাকার বরাদ্দকৃত নতুন ভবনের ভিত্তি দাঁড় করিয়ে সিঁড়ি ও পিলার ঢালাইয়ের জন্য প্রস্তুতি চালাচ্ছিল ঠিকাদার ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা। এমন সময় কাকতালীয়ভাবে গণমাধ্যমের নজরে আসে অনিয়মের চিত্র।

 

সেখানে দেখা যায়, নির্দিষ্ট স্থানে লেপিং’র ব্যবহার না করা, লোহার রিং স্থাপন না করা, সিঁড়ি সংযুক্ত পিলার বাঁকাভাবে স্থাপনসহ নানা অসঙ্গতি ও অনিয়ম। এছাড়াও মানহীন পাথর, বালু ও সিমেন্টের সংমিশ্রন নিয়েও রয়েছে অভিযোগ।

 

এ সময় ঘটনাস্থলে থাকা প্রতিষ্ঠানের সহ-সভাপতি আব্দুল মজিদ জানান, উপজেলা প্রকৌশলী কর্মকর্তাকে জানালে তিনি এসও মানিককে পাঠিয়ে দেন। তিনি এসে পুরো কাজ আবার নতুনভাবে শুরু করেন। ঘটনাস্থলে থাকা মানিক জানান, আমরা অভিযোগের সত্যতা দেখতে পেয়ে এখন ঠিক করতে বলেছি। এটা ছাড়া ঢালাই দেয়া হবে না। তবে এরইমধ্যে দুটি পিলারের ঢালাইয়ের কাজ সম্পন্ন হওয়া সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি জানান, আমরা সেসময় ছিলাম না ঠিকাদার জানে। কিন্তু ঠিকাদার এনামুল হকও সে সময় ছিলেন না এবং তিনি মিস্ত্রিকে ঢালাই করার কথা বলে বাইরে ছিলেন বলে অবগত করেন। এ সময় পুরো কাজে অনিয়মের বিষয়টি সম্পর্কে কোনো সদুত্তরও দিতে পারেননি এনামুল হক।

 

এ বিষয়ে উপজেলা প্রকৌশলী কর্মকর্তা মাহবুব উল আলম কাজে অনিয়মের সত্যতা পেয়ে এসও মানিককে পাঠিয়ে ব্যবস্থা নিয়েছেন বলে জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি
Design & Developed by Freelancer Zone